Homeজাতীয়আনভীরের মামলার পুনঃতদন্তের দাবি জাফরুল্লাহসহ ৫১নাগরিকের

আনভীরের মামলার পুনঃতদন্তের দাবি জাফরুল্লাহসহ ৫১নাগরিকের

নবদূত রিপোর্ট:

মোসারাত জাহানের (মুনিয়া) আত্মহত্যা প্ররোচনা মামলায় বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) সায়েম সোবহান আনভীরকে অব্যাহতি দিয়ে আদালতে পুলিশের চূড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিলের ঘটনায় উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ট্রাস্টি ডা: জাফরুল্লাহ চৌধুরীসহ দেশের ৫১ জন বিশিষ্ট নাগরিক।

গতকাল রোববার (২৫ জুলাই) এক বিবৃতিতে তাঁরা এই মামলার নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু পুনঃতদন্তের দাবি জানান।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘মামলা দায়েরের পর পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার তো দূরে থাক এমনকি থানায় নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে, এমন তথ্য আমাদের জানা নেই। বিপরীতে বিচার চেয়ে আয়োজিত একটি নাগরিক সমাবেশে বাধা প্রদান করা হয়।’

এতে, মামলার বাদীকে কোনো চাপের মুখে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ চাকরিচ্যুত করেছে কি না সরকারকে তা-ও খতিয়ে দেখতে অনুরোধ করা হয়।

বিবৃতিদাতারা বলেন, মোসারাতের আত্মহত্যা বা হত্যার ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত ও উপযুক্ত বিচার দেশের আইনের শাসনের প্রতি মানুষের আস্থা রক্ষার স্বার্থে অত্যন্ত জরুরি। বিবৃতিদাতাদের মধ্যে ইমেরিটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, হামিদা হোসেন, আলী ইমাম মজুমদার, হোসেন জিল্লুর রহমান, বদিউল আলম মজুমদার, সুলতানা কামাল, অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ, রাশেদা কে চৌধুরী, শাহীন আনাম, ইফতেখারুজ্জামান, অধ্যাপক পারভীন হাসান, শিরিন হক, শহিদুল আলম, গীতি আরা নাসরীন, পুশী কবির, অধ্যাপক আসিফ নজরুল প্রমুখের নাম ছিল। নাগরিকদের পক্ষে বিবৃতিতে সই করেন বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতির প্রধান নির্বাহী সৈয়দা রিজওয়ানা হাসান।

পুলিশ মোসারাতের আত্মহত্যা প্ররোচনা মামলায় সায়েম সোবহান আনভীরকে অব্যাহতি দিয়ে গত সপ্তাহে আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয়। রাজধানীর গুলশানের একটি ফ্ল্যাট থেকে গত ২৬ এপ্রিল রাতে মোসারাতের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধারের পর তাঁর বোন নুসরাত জাহান বাদী হয়ে মামলা করেন। মামলাটিতে একমাত্র আসামি সায়েম সোবহান আনভীর।

RELATED ARTICLES

Most Popular